1. jashimsarkar@gmail.com : admin :
  2. fatama.ruma007@gmail.com : Fatama Rahman Ruma : Fatama Rahman Ruma
  3. anikbd@germanbangla24.com : Editor : Editor
  4. rafid@germanbangla24.com : rafid :
  5. SaminRahman@germanbangla24.com : Samin Rahman : Samin Rahman
শিরোনাম :
গাজীপুরে লকডাউন অমান্য করে প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দরিদ্র কর্মহীন ৩’শ পরিবারের মাঝে নৌবাহিনীর খাদ্য সামগ্রী বিতরণ পৃথক পৃথক জায়গায় করোনার উপসর্গ নিয়ে আরো ৯ জনের মৃত্যু করোনার ত্রাণ বিতরণে অনিয়ম: তিন সাংবাদিক লাঞ্ছিত ঈশ্বরগঞ্জে খেলা নিয়ে সংঘর্ষ : আহত ৫ কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের তত্ত্বাবধানে সাতক্ষীরায় খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করোনা রুখতে সুবর্ণচরে যুবদল-ছাত্রদলের জরুরী পণ্য বিতরণ ও মাইকিং মালয়েশিয়ায় অসহায় বাংলাদেশী শিক্ষার্থীদের জন্য (বিএসইউএম) জরুরি তহবিল সংগ্রহ শৈলকুপায় সহস্রাধিক দরিদ্র পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ চলমান যুদ্ধে সাধারণ জনগণের পাশে ঝিনাইদহের পুলিশ সুপার




মালয়েশিয়াতে করানোর আদেশ অমান্য করে চলাচল করলে এক হাজার রিঙ্গিত জরিমানা, ছয় মাসের জেল

জার্মানবাংলা২৪ রিপোর্ট :
  • প্রকাশের সময়: বুধবার, ১৮ মার্চ, ২০২০
  • ৬১৪৫ বার পড়া হয়েছে
Check for details

মালয়েশিয়া ফেডারাল গভর্নমেন্টের গেজেটে বলা হয়েছে , করোনা ভাইরাস কোভিড -১৯ প্রাদুর্ভাবের কারণে যারা মুভমেন্ট কন্ট্রোল অর্ডার ( চলাচল নিয়ন্ত্রণ আদেশ ) এর নির্দেশনা মানবে না তাদের ১,০০০ ( এক হাজার ) রিঙ্গিত এর বেশি জরিমানা বা ছয় মাসের বেশি জেল অথবা উভয় দন্ডে সাজা হতে পারে।

১৮ মার্চ তারিখে স্বাস্থ্যমন্ত্রী দাতুক ডাঃ আধাম বাবার এর উপস্থিতিতে “সংক্রামক রোগ প্রতিরোধ ও নিয়ন্ত্রণ (সংক্রামিত স্থানীয় অঞ্চলের ব্যবস্থা) নিয়ন্ত্রণগুলি ২০২০” শীর্ষক আলোচনায় গেজেটে আরও বলা হয়েছে, যদি কোন সংস্থা, কোন পরিচালক, কোন সচিব বা এই জাতীয় ক্ষমতার যে কোন ব্যক্তির দেহ দ্বারা ছড়ায় তাহলে একসাথে বা পৃথক ভাবে ১,০০০ ( এক হাজার ) রিঙ্গিত এর বেশি জরিমানা বা ছয় মাসের বেশি জেল অথবা উভয় দন্ডে সাজা হতে পারে।

গেজেটে আরো উল্লেখ করা হয়, আর যদি এমন অপরাধ না করে থাকে তাহলে অবশ্যই প্রমাণ করতে হবে যে এই অপরাধে তার কোন জ্ঞান ছিল না এবং এই ধরনের অপরাধ এড়াতে সমস্ত প্রচেষ্টা এবং পদক্ষেপ সে নিয়েছিল এবং ভবিষ্যতে সচেতন থাকবেন।

করোনা ভাইরাস কোভিড -১৯ মহামারী টি প্রতিরোধে প্রধানমন্ত্রী তান শ্রী মুহিউদ্দিন ইয়াসিন কর্তৃক ১৮ মার্চ থেকে ৩১ শে মার্চ পর্যন্ত মুভমেন্ট কন্ট্রোল অর্ডার ( চলাচল নিয়ন্ত্রণ আদেশ ) ঘোষণার পরে অ্যাটর্নি জেনারেল চেম্বারদের সমন্বয়ে ফেডারেল গেজেট তৈরি করা হয়েছে।

করোনাভাইরাস ইতিমধ্যেই বিশ্বের ১৫৬টি দেশে ছড়িয়ে পড়েছে। এতে মারা গেছেন প্রায় ৭,৯৫৬ জন মানুষ। আর আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ২ লাখ জন মানুষ।

উলেখ্য,সোমবার স্থানীয় সময় রাত ১০টায় জাতির উদ্দেশ্যে এক ভাষণে মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী তান শ্রী মুহিউদ্দিন ইয়াসিন ঘোষণা করেছেন ,করোনা ভাইরাস কোভিড -১৯ প্রাদুর্ভাবের কারণে মালয়েশিয়ায় বুধবার (১৮ মার্চ) থেকে ৩১ শে মার্চ পর্যন্ত দেশব্যাপী সব কিছু বন্ধ থাকবে। এই সময়ের মধ্যে মালয়েশিয়া থেকে কেউ দেশের বাইরে যেতে পারবে না এবং কেউ দেশের মধ্যে আসতে পারবে না। যেখানে সুপারমার্কেট, মুদি দোকান ও নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দোকান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছ।

এছাড়াও টেলিযোগাযোগ, পরিবহন, ব্যাংকিং, স্বাস্থ্য, ফার্মেসী, বন্দর, বিমানবন্দর, পরিচ্ছন্নতা ও খাদ্য সরবরাহের মতো প্রয়োজনীয় পরিষেবা ব্যতীত সকল সরকারি ও বেসরকারী প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে।

সোমবার মালয়েশিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রী দাতুক সেরি ডা আদহাম বাবা সাংবাদিকদের জানান, সম্প্রতি পেতালিংজায়া মসজিদে তাবলীগে যোগদানের মধ্যে ৯৫ জনকে করোনায় আক্রান্তের রেকড করা হয়েছে। সব মিলিয়ে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৭৯০ জন। তিনি আরো বলেন, আমরা সরকারের পক্ষ থেকে করোনা ভাইরাস রোধে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছি।

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ফেসবুকে জার্মানবাংলা২৪

বিজ্ঞাপন

Check for details