1. jashimsarkar@gmail.com : admin :
  2. adminmonir@germanbangla24.com : monir uzzaman : monir uzzaman
  3. fatama.ruma007@gmail.com : Fatama Rahman Ruma : Fatama Rahman
  4. anikbd@germanbangla24.com : SIDDIQUE ANIK : ANIK SIDDIQUE
  5. infi@germanbangla24.com : Hasan Imam Juwel : Hasan Imam Juwel
  6. rafid@germanbangla24.com : rafid :
  7. SaminRahman@germanbangla24.com : Samin Rahman : Samin Rahman
শিরোনাম :
পদ্মায় ফেরিডুবি :পাটুরিয়ায় ডুবে গেছে শাহ আমানত ফেরি জার্মানিতে বিএনপি’র কর্মীসভা ‘বর্তমান সরকার উন্নয়নের সরকার’ : এমপি ছেলুন জোয়ার্দ্দার জার্মান বিএনপির হেছেন প্রাদেশিক কমিটির কর্মী সভা অনুষ্ঠিত জার্মানির মানহাইমে জমজমাট ঈদ পুনর্মিলনী ও গ্রিল পার্টি লেবাননে শাহ্জালাল প্রবাসী সংগঠনের দ্বশম বর্ষ পূর্তি উদযাপন ও সভাপতিকে বিদায়ী স্বংবর্ধনা করোনা টিকার প্রসঙ্গে ও করোনার তৃতীয় ঢেউ: মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া রাষ্ট্রদূত, জার্মানি বাংলাদেশ জার্মান জাতীয়তাবাদী কালচারাল অ্যাসোসিয়েশনের বনভোজন অনুষ্ঠিত ঝালকাঠিতে সেপটি ট্যাংকের সেন্টারিং খুলতে গিয়ে নিহত ২ জামালপুরে ‘বাংলাদেশ ফটো জার্নালিস্ট এসোসিয়েশন’ এর মাক্স বিতরণ

বেনাপোলের কাগজপুকুর শহীদ স্মৃতি সৌধটি যেন ডাষ্টবিন!

জার্মানবাংলা২৪ রিপোর্ট :
  • প্রকাশের সময়: শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮
Check for details

আরিফুজ্জামান আরিফ বেনাপোল প্রতিনিধি: বেনাপোলের কাগজপুকুরে শহীদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানানোর একমাত্র স্মৃতিসৌধের জায়গাটি অযত্ন আর অবহেলায় এখন ময়লা-আবর্জনার স্তুুপ জমে ডাষ্টবিনে পরিণত হয়েছে।

ভাষা আন্দোলন এবং মহান মুক্তিযুদ্ধে আত্মহুত্তি দেওয়া সকল শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে দেশের সীমান্তবর্তী অঞ্চল বেনাপোল পোর্ট থানার কাগজপুকুর নামক স্থানে একটি স্মৃতি সৌধ স্থাপন করে বেনাপোল পৌরসভা। আর স্মৃতিসৌধ কে ঘিরে এখানে একটি কাঁচা বাজার গড়ে উঠে।

ফলে এখন প্রায়ই সময় বাজারের উচ্ছিষ্ঠাংশ ময়লা-আবর্জনা ফেলা হয় স্মৃতি সৌধের স্থানটিতে।পরিনত হতে চলেছে ডাষ্টবিনে। আর এদিকে বেনাপোল পৌরসভা কর্তৃক স্মৃতিসৌধের স্থানটি পরিস্কার পরিচ্ছন করার কথা থাকলেও সেটা করা হয় না বলে জানান এলাকার সচেতনমহল ও এলাকাবাসী ।

ফলে সম্পূর্ণ অযত্ন আর অবহেলায় এই স্থানটি ক্রমেই শ্রদ্ধাহীনতার দিকে এগিয়ে চলেছে। যে কোন জাতীয় উৎসব পালন কালীন সময় সংশিষ্ট কর্তৃপক্ষ ধোয়া-মোছার কাজটি করে থাকলেও পরে আর তা করা হয় না।

এলাকার সচেতন মানুষ ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন,কাচাঁ বাজার এলাকা থেকে স্মৃতিসৌধটি সরিয়ে অন্য জায়গায় সরিয়ে
নেওয়ার ব্যবস্থা করা হোক।নচেৎ স্মৃতিসৌধ টিকে রাখতে প্রয়োজনীয় অতীব জরুরী কার্যকারী পদক্ষেপ।

বিষয়টি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ স্মৃতিসৌধটির সৌন্দর্য বর্ধনে জরুরি কার্যকারী ব্যবস্হা গ্রহণ করবেন এমনটাই প্রত্যাশা এলাকার সচেতন মহলের।

শেয়ার করুন:
এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ফেসবুকে জার্মানবাংলা২৪

বিজ্ঞাপন

Check for details