1. jashimsarkar@gmail.com : admin :
  2. adminmonir@germanbangla24.com : monir uzzaman : monir uzzaman
  3. fatama.ruma007@gmail.com : Fatama Rahman Ruma : Fatama Rahman
  4. anikbd@germanbangla24.com : SIDDIQUE ANIK : ANIK SIDDIQUE
  5. infi@germanbangla24.com : Hasan Imam Juwel : Hasan Imam Juwel
  6. rafid@germanbangla24.com : rafid :
  7. SaminRahman@germanbangla24.com : Samin Rahman : Samin Rahman
শিরোনাম :
জার্মানির মানহাইমে জমজমাট ঈদ পুনর্মিলনী ও গ্রিল পার্টি লেবাননে শাহ্জালাল প্রবাসী সংগঠনের দ্বশম বর্ষ পূর্তি উদযাপন ও সভাপতিকে বিদায়ী স্বংবর্ধনা করোনা টিকার প্রসঙ্গে ও করোনার তৃতীয় ঢেউ: মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া রাষ্ট্রদূত, জার্মানি বাংলাদেশ জার্মান জাতীয়তাবাদী কালচারাল অ্যাসোসিয়েশনের বনভোজন অনুষ্ঠিত ঝালকাঠিতে সেপটি ট্যাংকের সেন্টারিং খুলতে গিয়ে নিহত ২ জামালপুরে ‘বাংলাদেশ ফটো জার্নালিস্ট এসোসিয়েশন’ এর মাক্স বিতরণ করোনা : সখীপুরে লকডাউন বিধিনিষেধ অমান্য করায় জরিমানা করোনা : সাতক্ষীরা পুলিশের মোটরসাইকেল র‌্যালি ও মাস্ক বিতরণ লেবানন বিএনপির সভাপতি বাবু, সম্পাদক আইমান, সাংগঠনিক হাবিব সখীপুরে ‘মুক্তিযুদ্ধের কবিতা’ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওপরই অনেক জোট বা দলের আস্থা

জার্মানবাংলা২৪ রিপোর্ট :
  • প্রকাশের সময়: বৃহস্পতিবার, ৮ নভেম্বর, ২০১৮
Check for details

জার্মানবাংলা বিশেষ রিপোর্ট: চলমান সংলাপে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগই লাভবান হয়েছেন বলে বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন। কারণ অনেক জোট বা দলের পক্ষে সংলাপে অংশ নেয়া নেতারা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওপর আস্থা দেখে তারা এই মন্তব্য করেছেন।

চলমান নির্বাচনী সংলাপে সর্বশেষ অংশ নেন ৯টি রাজনৈতিক দল ও ১৪টি জোটের নেতারা। ন্যাপ ভাসানী ও বাম গণতান্ত্রিক ঐক্য ছাড়া বাকিরা আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

ব্যারিস্টার নাজমুল হুদা বলেছেন, ‘অনির্বাচিত সরকারের কোনো দায়বদ্ধতা থাকে না। তাই নির্বাচিত সরকারের অধীনে নির্বাচন উত্তম।’ অন্যদিকে বাম গণতান্ত্রিক ঐক্যের সমন্বয়ক ডা. এমএ সামাদ নির্বাচনকালী সরকার, ইভিএম বাতিল ও নির্বাচনে সেনা মোতায়েনের পাশাপাশি তাদের হাতে আংশিক ক্ষমতা দেওয়াসহ সাত দাবি জানান।

সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন গণভবনে এ সংলাপ হয়। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের পরে সাংবাদিকদের বলেন, ‘এই সংলাপ ইতিহাসে মাইলফলক স্থাপন করেছে। রাষ্ট্রের প্রধান এমন সংলাপ করেছেন, এমন নজির বাংলাদেশে নেই।’

তিনি বলেন, ‘দলের অনেকেই সংলাপের বিরুদ্ধে ছিলাম। ১৫ ও ২১ আগস্টের কুশিলবদের সঙ্গে আলোচনা করতে চাইনি। নেত্রী (শেখ হাসিনা) চেয়েছেন বলেই আমরা সার্বিক সহযোগিতা করেছি।’ এই সংলাপে ৭০টিরও বেশি জোট ও দল এসেছে বলেও জানান ওবায়দুল কাদের।আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, “সংলাপে অংশ নিয়ে শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘আলাপ আলোচনার জন্য দরজা খোলা। কিন্তু নির্বাচনকেন্দ্রিক সংলাপ এখানেই আনুষ্ঠানিকভাবে শেষ। ব্যক্তিগত বা অন্যান্য বিষয়ে কথা হতে পারে।’ তিনি বলেন, ‘বেশিরভাগ দলই স্থিতাবস্থা চেয়েছে। সংসদকে বহাল রেখে নির্বাচন করার পক্ষে তারা। সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ ব্যবস্থার পক্ষে সবাই। নির্বাচন কমিশনকে সরকার সাপোর্ট করবে।’ নির্বাচন ঘিরে যত উত্তাপ, তাতে পানি ঢেলে দিয়েছেন শেখ হাসিনা।”এক প্রশ্নের জবাবে কাদের বলেন, ‘ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচনে আসবে না, এটা আমরা বিশ্বাস করি না।’

সর্বশেষ সংলাপে অংশ নেওয়া ৯টি দলের মধ্যে ছিল বাংলাদেশ সমাজ উন্নয়ন পার্টি (বিএসডিপি), ন্যাপ ভাসানী, ন্যাশনাল পিপলস্ পার্টি (এনপিপি), বাংলাদেশ সত্যব্রত আন্দোলন, ঐক্য ন্যাপ, বাংলাদেশ কৃষক শ্রমিক পার্টি (কেএসপি), তৃণমূল জাতীয়তাবাদী গণতান্ত্রিক আন্দোলন, জাতীয় স্বাধীনতা পার্টি (জেএসপি) ও বাংলাদেশ জাতীয় পার্টি। অন্যদিকে ১৪টি জোটের মধ্যে ছিল জাতীয় গণতান্ত্রিক জোট (এনডিএ), বাংলাদেশ জাতীয় জোট-বিএনএ, বাংলাদেশ গণতান্ত্রিক ঐক্যফ্রন্ট, বাংলাদেশ ন্যাশনাল ডেমোক্র্যাটিক ফ্রন্ট (এনডিএফ), যুক্তফ্রন্ট, গণফ্রন্ট ও প্রগতিশীল জোট, বাংলাদেশ গণতান্ত্রিক মুক্তি আন্দোলন (বিজিএমএ), জাতীয় গণতান্ত্রিক জোট (এনডিএ), ঐক্যবদ্ধ নাগরিক আন্দোলন, গণতান্ত্রিক বাম ঐক্য, প্রগতিশীল জাতীয়তাবাদী দল (পিএনপি) এবং প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক দল (পিডিপি), বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা ঐক্য জোট, বাংলাদেশ গণতান্ত্রিক ঐক্য জোট বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু মহাজাট।

শেয়ার করুন:
এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ফেসবুকে জার্মানবাংলা২৪

বিজ্ঞাপন

Check for details