1. jashimsarkar@gmail.com : admin :
  2. adminmonir@germanbangla24.com : monir uzzaman : monir uzzaman
  3. fatama.ruma007@gmail.com : Fatama Rahman Ruma : Fatama Rahman
  4. anikbd@germanbangla24.com : SIDDIQUE ANIK : ANIK SIDDIQUE
  5. infi@germanbangla24.com : Hasan Imam Juwel : Hasan Imam Juwel
  6. rafid@germanbangla24.com : rafid :
  7. SaminRahman@germanbangla24.com : Samin Rahman : Samin Rahman
শিরোনাম :
লেবানন বিএনপির সভাপতি বাবু, সম্পাদক আইমান, সাংগঠনিক হাবিব সখীপুরে ‘মুক্তিযুদ্ধের কবিতা’ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন নাইজেরিয়ায় ইসলামিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে প্রায় ২০০ শিশুকে অপহরণ ঘুর্ণিঝড় ইয়াসের প্রভাবে সাতক্ষীরার উপকুলীয় এলাকায় ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি লেবানন আ’লীগের সম্মেলন: সভাপতি বাবুল মিয়া, সম্পাদক তপন ভৌমিক সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে হেনস্থা ও মিথ্যা মামলায় গ্রেফতারের ঘটনায় জামালপুর প্রেসক্লাবের প্রতিবাদ সখীপুর এস.পি.ইউ.এফ’র ১ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন লেবাননে প্রবাসী অধিকার পরিষদের ইফতার মাহফিল বেগম জিয়াকে চিকিৎসার জন্য বিদেশে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেবে সরকার : অ্যাটর্নি জেনারেল করোনা : ভারতে শনাক্ত ২ কোটি ছাড়াল

প্রকাশ্য প্রেমিকার প্রত্যাখ্যানে ক্ষিপ্ত হয়ে প্রেমিকের আত্মহত্যা

জার্মানবাংলা২৪ রিপোর্ট :
  • প্রকাশের সময়: বৃহস্পতিবার, ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৮
Check for details

স্থানীয় সালিশে প্রকাশ্য প্রেমিকার প্রত্যাখ্যান আর চাচার শাসনে ক্ষিপ্ত হয়ে সাহেদ হোসেন (১৯) নামের এক যুবক আত্মহত্যা করেছে। সে উপজেলার টিলাগাঁও ইউনিয়নের লালপুর গ্রামের হাসন আলীর ছেলে। একটি গ্রাম্য সালিশে রাতেই অভিমান করে গাছের সাথে গলায় ফাঁস দেয় যুবকটি।

বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় কুলাউড়া উপজেলার টিলাগাঁও ইউনিয়নের পাল্লাকান্দি চা বাগানের ভেতর থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় যুবকের মৃতদেহ উদ্ধার করে কুলাউড়া থানা পুলিশ। পুলিশ দাবী করছে যুবকটি প্রেম সংঘটিত ঘটনায় আত্মহত্যা করেছে।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন এডিশনাল এসপি (কুলাউড়া সার্কেল) আবু ইউছুফ।

নিহত যুবকের প্যান্টের পকেট হতে চার পৃষ্ঠার লেখা একটি চিরকুটও পেয়েছে পুলিশ। চিরকুটে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য রয়েছে বলে সূত্র নিশ্চিত করে। এ ঘটনায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান কুলাউড়া থানার এস. আই. বাদল।

এদিকে ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে রাজনৈতিক একটি পক্ষ ভিন্নখাতে প্রভাবিত করার চেষ্টা করছে বলে খবর জানান স্থানীয়রা। একটি পক্ষ সালিশ উপস্থিত ব্যক্তিদের নামে মামলা করতে নিহতের পরিবারকে উস্কে দিচ্ছে।

একটি অনুসন্ধানে জানা গেছে, নিহত সাহেদ হোসেনের সাথে একই গ্রামের একটি মেয়ের সাথে দীর্ঘ ২ বছর ধরে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। বিষয়টি উভয় পরিবার ভালো চোখে দেখেনি বিধায় ২০-২২ দিন আগে প্রেমিক-প্রেমিকা এক সাথে আত্মহত্যার পরিকল্পনা করে। আত্মহত্যার জন্য সাহেদ নিজ হাতে বিষের বোতল দিয়ে আসে মেয়েটিকে। পরক্ষনে মেয়েটি বিষপান করলেও সাহেদ বিষপান থেকে বিরত ছিল। অন্যদিকে মেয়েটি বিষপানে মারাত্মক অসুস্থ হলে পরিবারের পক্ষ থেকে দ্রুত চিকিৎসা নিলে সুস্থ হয়ে উঠে মেয়েটি।

এদিকে মেয়েটির বিষ পানের পর এলাকাজুড়ে শুরু হয় তোলপাড়। মেয়ের পরিবারের পক্ষ থেকে স্থানীয়দের কাছে বিচারপ্রার্থী হলে উভয় পরিবারের অভিভাবকদের নিয়ে গ্রাম্য সালিশ অনুষ্ঠিত হয় গত ১২ সেপ্টেম্বর রাতে। সালিশে ছেলে-মেয়ের পক্ষ হতে প্রেমের বিষয়টি স্পষ্ট হয়। পরে মেয়েটির চিকিৎসা খরচ হিসেবে ছেলে পক্ষ থেকে ৫ হাজার টাকা ক্ষতিপূরণ দেয়া হয়। এক পর্যায়ে ছেলেটির চাচা আছকির আলী সাহেদকে চড় থাপ্পড় মারেন আর এক বার কান ধরে উঠবস করান। একসঙ্গে আত্মহননের পরিকল্পনা থাকলেও সাহেদ প্রতারণা করেছে জানিয়ে তাকে প্রকাশ্য প্রত্যাখ্যান করে মেয়েটি।

সালিশ শেষে রাতে চা বাগানে গাছের সাথে গলায় ফাঁস দেয় সাহেদ। ভোরে চা-বাগানের চৌকিদার ঝুলন্ত মৃতদেহ দেখে আশপাশের লোকজনকে ডাকে। পরে পুলিশকে খবর দিলে এসআই বাদল ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালে পাঠান।

শেয়ার করুন:
এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ফেসবুকে জার্মানবাংলা২৪

বিজ্ঞাপন

Check for details