1. jashimsarkar@gmail.com : admin :
  2. adminmonir@germanbangla24.com : monir uzzaman : monir uzzaman
  3. fatama.ruma007@gmail.com : Fatama Rahman Ruma : Fatama Rahman
  4. anikbd@germanbangla24.com : germanbangla24.com : germanbangla24.com
  5. infi@germanbangla24.com : Hasan Imam Juwel : Hasan Imam Juwel
  6. rafid@germanbangla24.com : rafid :
  7. SaminRahman@germanbangla24.com : Samin Rahman : Samin Rahman
শিরোনাম :
জার্মানবাংলা’র ‘মিউজিক্যাল লাইভ শো’র এবারের অতিথি কণ্ঠশিল্পী ”মঞ্জু সাহা” জার্মানবাংলা’র ”প্রবাসির সাফল্য” শো’র এবারের অতিথি ”মিনহাজ দীপন” জার্মানবাংলা’র ‘মিউজিক্যাল লাইভ শো’র এবারের অতিথি কণ্ঠশিল্পী ”ফারজাহান রহমান শাওন” বাগেরহাটে ৭ দিনব্যাপী বই মেলা শুরু জার্মানবাংলা’র ‘মিউজিক্যাল লাইভ শো’র এবারের অতিথি, বাচিকশিল্পী “জান্নাতুল ফেরদৌসী লিজা” টিকার দ্বিতীয় ডোজ ৮ সপ্তাহ পর : স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ১৪ ফেব্রুয়ারি, উপেক্ষিত ‘সুন্দরবন দিবস’ জীবননগর পৌর নির্বাচন : আচরণবিধি লঙ্ঘন ,৩ জনের সাজা জার্মানবাংলা’র ‘মিউজিক্যাল লাইভ শো’র এবারের অতিথি শিল্পী ”বিথী পান্ডে” বাগেরহাটে ওরিয়ন গ্রুপের বিরুদ্ধে গ্রাম্য সড়ক দখলের অভিযোগ

চিকিৎসক নন, ট্রাম্প নিজের স্বাস্থ্য সনদ নিজেই লিখেছিলেন

জার্মানবাংলা২৪ রিপোর্ট :
  • প্রকাশের সময়: বুধবার, ২ মে, ২০১৮
Check for details

ডেস্ক রিপোর্ট: যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সাবেক চিকিৎসক বলছেন, ২০১৫ সালে তখনকার রিপাবলিকান প্রেসিডেন্ট প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্পের স্বাস্থ্য ‘অবাক করার মতো চমৎকার’ বলে যে চিকিৎসা সনদ দেয়া হয়েছিল, সেটি তিনি নিজে লেখেননি। ট্রাম্পের নির্দেশে সেটা লেখা হয়েছিল বলে দাবি করেছেন চিকিৎসক হ্যারল্ড বোর্নস্টেইন।
সিএনএন টেলিভিশনকে চিকিৎসক হ্যারল্ড বোর্নস্টেইন বলেছেন, ‘তিনি (ট্রাম্প) নিজেই সেটির নির্দেশনা দিয়েছিলেন।’
২০১৫ সালের ওই চিঠির বক্তব্য ছিল, যুক্তরাষ্ট্রে এ পর্যন্ত যতজন মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন, তাদের মধ্যে ডোনাল্ড ট্রাম্পের স্বাস্থ্য সবচেয়ে ভালো।
ওই চিঠিতে লেখা ছিল, ট্রাম্পের শারীরিক শক্তি এবং কর্মক্ষমতা অসাধারণ। তার রক্তের চাপ এবং গবেষণাগারের প্রতিবেদন অবাক করার মতো চমৎকার। পুরো বছর জুড়ে তিনি ৭ কেজি ওজন কমিয়েছেন। ট্রাম্পের ক্যান্সারের কোনও লক্ষণ নেই বা জয়েন্ট সার্জারি হয়নি।
সে সময় টুইট করে ট্রাম্প বলেছিলেন, ‘আমি ভাগ্যবান যে, আমার শরীরে সেরা জিন রয়েছে।’
কিন্তু এখন চিকিৎসক বোর্নস্টেইন দাবি করছেন, তিনি নিজে থেকে ওই সনদ লেখেননি। তাকে যেভাবে বলা হয়েছিল তিনি সেভাবে ওই চিকিৎসা সনদটি বানিয়েছিলেন। সেটি তার পেশাদার বিশ্লেষণ ছিল না।
তবে তার এই বক্তব্যের বিষয়ে এখনো কোন মন্তব্য করেনি হোয়াইট হাউজ। ডোনাল্ড ট্রাম্পের ওই সাবেক চিকিৎসক আরো অভিযোগ করেছেন, ২০১৭ সালের ফেব্রুয়ারিতে ট্রাম্পের দেহরক্ষী একদিন তার অফিসে এসে অভিযান চালিয়ে তার চিকিৎসা সংক্রান্ত সব কাগজপত্র নিয়ে গেছে। কিন্তু এতদিন পরে ডোনাল্ড ট্রাম্পের সাবেক এই চিকিৎসক কেন এই দাবি করছেন, তা পরিষ্কার নয়।
গত জানুয়ারিতে মানসিক সুস্থতা নিয়ে বিতর্কের জের ধরে তিন ঘণ্টা ধরে ডোনাল্ড ট্রাম্পের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়। এরপর তার হোয়াইট হাউজ চিকিৎসক রনি জ্যাকসন বলেছিলেন, ‘তার মস্তিষ্কের দক্ষতা নিয়ে আমার কোন সন্দেহ নেই। সূত্র: বিবিসি

শেয়ার করুন:
এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ফেসবুকে জার্মানবাংলা২৪

বিজ্ঞাপন

Check for details