1. jashimsarkar@gmail.com : admin :
  2. adminmonir@germanbangla24.com : monir uzzaman : monir uzzaman
  3. fatama.ruma007@gmail.com : Fatama Rahman Ruma : Fatama Rahman
  4. anikbd@germanbangla24.com : SIDDIQUE ANIK : ANIK SIDDIQUE
  5. infi@germanbangla24.com : Hasan Imam Juwel : Hasan Imam Juwel
  6. rafid@germanbangla24.com : rafid :
  7. SaminRahman@germanbangla24.com : Samin Rahman : Samin Rahman
শিরোনাম :
জার্মানিতে বিএনপি’র কর্মীসভা ‘বর্তমান সরকার উন্নয়নের সরকার’ : এমপি ছেলুন জোয়ার্দ্দার জার্মান বিএনপির হেছেন প্রাদেশিক কমিটির কর্মী সভা অনুষ্ঠিত জার্মানির মানহাইমে জমজমাট ঈদ পুনর্মিলনী ও গ্রিল পার্টি লেবাননে শাহ্জালাল প্রবাসী সংগঠনের দ্বশম বর্ষ পূর্তি উদযাপন ও সভাপতিকে বিদায়ী স্বংবর্ধনা করোনা টিকার প্রসঙ্গে ও করোনার তৃতীয় ঢেউ: মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া রাষ্ট্রদূত, জার্মানি বাংলাদেশ জার্মান জাতীয়তাবাদী কালচারাল অ্যাসোসিয়েশনের বনভোজন অনুষ্ঠিত ঝালকাঠিতে সেপটি ট্যাংকের সেন্টারিং খুলতে গিয়ে নিহত ২ জামালপুরে ‘বাংলাদেশ ফটো জার্নালিস্ট এসোসিয়েশন’ এর মাক্স বিতরণ করোনা : সখীপুরে লকডাউন বিধিনিষেধ অমান্য করায় জরিমানা

ই-পাসপোর্ট প্রকল্প দ্রুত বাস্তবায়নের জন্য জার্মানির প্রতি আহ্বান রাষ্ট্রপতির

জার্মানবাংলা২৪ রিপোর্ট :
  • প্রকাশের সময়: বৃহস্পতিবার, ২৬ জুলাই, ২০১৮
Check for details

জার্মানবাংলা ২৪ ডটকম:রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ জার্মানির প্রতি দু’দেশের মধ্যে সম্পাদিত চুক্তি অনুযায়ী ই-পাসপোর্ট প্রকল্প দ্রুত বাস্তবায়নের আহ্বান জানিয়েছেন।
আজ বিকেলে বঙ্গভবনে জার্মানির বিদায়ী রাষ্ট্রদূত ড. থমাস হেনরিখ প্রিঞ্জ রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে গেলে তিনি এ আহ্বান জানান। গত ১৯ জুলাই বাংলাদেশ ও জার্মানির মধ্যে ই-পাসপোর্ট বাস্তবায়নের লক্ষ্যে একটি সরকার-সরকার (গভর্মেন্ট টু গভর্মেন্ট) চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।
রাষ্ট্রপতির প্রেস সচিব জয়নার আবেদীন বাসসকে বলেন, রাষ্ট্রপতি আশা প্রকাশ করেন যে, নির্ধারিত সময়সীমার মধ্যেই ই-পাসপোর্ট প্রকল্প বাস্তবায়িত হবে।
বাংলাদেশ ১৯৭২ সালে জার্মানি বাংলাদেশের স্বাধীনতাকে স্বীকৃতি দেয়ার পর থেকে দু’দেশের মধ্যে চলমান সুসম্পর্কের কথা স্মরণ করে রাষ্ট্রপতি বলেন, তখন থেকে দু’দেশের মধ্যে সম্পর্ক দিন দিন জোরদার হচ্ছে।
রাষ্ট্রপতি বলেন, ‘জার্মানি বাংলাদেশের অন্যতম ঘনিষ্ট উন্নয়ন সহযোগী। এছাড়া দু’দেশের মধ্যে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্পর্ক খুবই চমৎকার।’
রাষ্ট্রপতি বাংলাদেশে দায়িত্ব পালনের মেয়াদে বিদায়ী জার্মান রাষ্ট্রদূতের সামগ্রিক কর্মকান্ডের প্রশংসা করেন।
বাংলাদেশের সার্বিক পরিবেশের প্রশংসা করে রাষ্ট্রদূত বলেন, ‘বহু জার্মান বিনিয়োগকারী ইতোমধ্যে বাংলাদেশে বিশেষ করে বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে বিনিয়োগ করেছে। অনেকেই এখানে তাদের বিনিয়োগ বাড়াতে আগ্রহী।’ রাষ্ট্রদূত দু’দেশের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক দৃঢ়মূল উল্লেখ করে বলেন, এটি সুশীল সমাজ পর্যায়েও সম্প্রসারিত হয়েছে।
বঙ্গভবনের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সচিবগণ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

শেয়ার করুন:
এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ফেসবুকে জার্মানবাংলা২৪

বিজ্ঞাপন

Check for details